আন্তর্জাতিক যোগ দিবস ২০২০-অফিসের কাজ করতে করতেই করুন এই পাঁচটি সহজ যোগাসন

কাজের মধ্যেই ৫ যোগাসন, থাকুন ফিট

যোগা সময় নেয় না, সময় দেয়,     army pic সৌঃ ANI

করোনা অতিমারীতে  আপনার বাড়ি কিংবা বেডরুমটাই হয়ে উঠেছে অফিস। অনেকে আবার নিউ নরম্যাল ফেজে অফিসে যাওয়া শুরু করেছেন। সে অফিস যেখানেই হোক না কেন? শরীর ফিট রাখতে যোগাভ্যাস যেন রুটিন থেকে বাদ না যায় তার খেয়াল অবশ্যই রাখবেন। মনে রাখবেন এমন অনেক যোগাসন রয়েছে যা অফিসের কাজ করতে করতেই আপনি সেরে ফেলতে পারেন। আন্তর্জাতিক যোগ দিবসে Health24x7 এর তরফে রইল সেরকমই পাঁচটি যোগাসনের বিস্তারিত বিবরণ…

. সিটেড্ আর্ম রেইজেস্ (Seated Arm Raises)

 

সিটেড্ আর্ম রেইজেস্

এমন কাজের সঙ্গে যুক্ত আপনি যে দীর্ঘক্ষণ চেয়ারে বসেই আপনাকে কাজ করতে হয় মোবাইল কিংবা ল্যাপটপে। কাজ করতে করতেই আপনি আপনার দুটি হাত সোজা করে ওপরে তুলে দিন। এইভাবে পাঁচ সেকেন্ড ধরে রাখুন। এবার বাঁহাতের তালু দিয়ে ডান হাতের কনুই ধরুন এবং আপনার ডানহাত প্রসারিত করুন। একই ভাবে ডান হাতের তালু দিয়ে বাঁহাতের কনুই ধরুন এবং বাঁ-হাত প্রসারিত করুন। এইভাবে ২০ বার করুন। এতে আপনার হাতের মাসেল সচল হবে। দীর্ঘক্ষণ মোবাইল বা ল্যাপটপে কাজের দরুন হাতের ক্লান্তি দূর হবে।

. ক্যাফ্ রেইজেস্ (Calf Raises)

                                                          ক্যাফ্ রেইজেস্

ক্যাফ রেইজেস্ একদম সহজ একটি আসন যা আপনি দাঁড়িয়ে যেকোনও যায়গায় করতে পারেন। সে হতে পারে আপনার অফিস কিংবা ওয়াসরুম বা ক্যান্টিন। এই আসনে আপনি আপনার দু’পায়ের আঙ্গুলের উপর ভর করে গোড়ালি যতটা সম্ভব উপরের দিকে তুলুন। এইভাবে তিন সেকেন্ড থাকুন এবং আস্তে আস্তে নীচে নামিয়ে নিন। এইভাবে ৩০ বার করুন। আপনার ক্যাফ মাসেলে একটু গরম অনুভূতি হবে। এই আসনের ফলে দীর্ঘক্ষণ পা ঝুলিয়ে রাখার ফলে পা ফুলে যাবে না এবং আপনার ক্যাফ মাসল শক্তপোক্ত হবে।

আরও পড়ুন: প্রতিদিন খান এই সবজি, থাকুন রোগমুক্ত

. লেগ রেইজেস্ অ্যান্ড রোটেসন (Leg Raises And Rotation)

 

লেগ রেইজেস্ অ্যান্ড রোটেসন, ছবি সৌঃwikihow

চেয়ারে বসে কাজ করতে করতেই আপনার দু‍’পা মাটির সমান্তরালে সোজা করে তুলুন। এই পজিসনেই ঘড়ির কাঁটার দিকে এবং বিপরীতে ৩ বার করে দু’পা ঘোরান। এবার দু’পা আগের অবস্থায় নিয়ে আসুন। এইভাবে দশবার করুন। এই আসনে আপনার হ্যামস্ট্রিং-এর পেশি শক্তপোক্ত থাকবে।

. নেক স্যুইং (Neck Swing)

                                                                   নেক স্যুইং

বসে কাজ করতে করতেই আপনার ঘাড় বাঁদিক, ডানদিক, উপর, নীচে ঘোরান। একদিক অন্যদিকে ঘাড় ঘোরান। প্রতি মুভমেন্টে ১-৫ পর্যন্ত গুনুন। তারপর অন্য মুভমেন্টে যান। এতে আপনার দীর্ঘক্ষণ ঘাড় গুঁজে কাজ করার দরুন যে ব্যাথা বা টান অনুভূত হয় তা দূর হবে।

আরও পড়ুন: করোনা ভাইরাসকে হারাতে পারে রান্নাঘরের এই তিন উপকরণ

. আই ফোকাস এক্সাসাইজ (Eye Focused Exercise)

                                                আই ফোকাস এক্সাসাইজ

চোখ-দুটিকে আমরা সবথেকে অবহেলা করি। অথচ এই চোখ দিয়েই দীর্ঘক্ষণ একটা মোবাইল, কম্পিউটার বা ল্যাপটপের দিকে তাকিয়ে বসে থাকি। তাই টোখের যন্ত নেওয়া একান্ত জরুরি। কাজ করতে করতেই ৩০ সেকন্ডের জন্য কম্পিউটার, ল্যাপটপ বা মোবাইল থেকে চোখ সরিয়ে নিন এবং বার বার চোখের পাতা ফেলুন। অফিস টাইমে অন্তত ১০ বার এমন করুন। দ্বিতীয়ত ৫০ ফুট দূরের কোনও বস্তুর দিকে ঠায় তাকিয়ে থাকুন। এরকম অন্ততপক্ষে ৫ বার করুন। তৃতীয়ত দু’হাত ঘষে নিন এতে যে গরম তাপ উৎপন্ন হবে তা নিয়ে সঙ্গে সঙ্গে দু’হাত দিয়ে ২০ সেকেন্ড চোখ ঢেকে রাখুন। অন্তত পাঁচবার এমন করুন। এই পদ্ধতিগুলি অবলম্বন করলে চোখে স্ট্রেইন্ কম পড়বে। চোখ ভালো থাকবে।

মনে রাখবেন সেডেটারি লাইফস্টাইল  বা বসে বসে কাজ করার ক্ষেত্রে জিমে  গিয়ে ঘাম ঝড়ানোই একমাত্র রাস্তা নয়। উপরোক্ত আসনগুলি আপনি কাজ করতে করতেই সেরে ফেলতে পারেন। এতে শরীর ভালো থাকবে, সঙ্গে মনও। আসনেরর সঙ্গে সঙ্গে স্বাস্থ্যকর খাবার খান। বসে কাজ করার ক্ষেত্রে প্রতি এক ঘন্টা অন্তর উঠে দাঁড়ান এবং ৫০ পা হাঁটুন। পরে আপনার শরীর আপনাকে ধন্যবাদ দেবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *